সন্ধান সর্বশেষ

ঢাকা উত্তর সিটির মেয়র পদে উপ-নির্বাচন আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারী

0

ডেস্ক রির্পোট★ আনিসুল হকের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র পদে উপ-নির্বাচনের দিনক্ষণ নির্ধারন করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি এই পদে ভোট হবে। একইদিনে ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণে নতুন যুক্ত হওয়া ৩৬ ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদেও ভোট করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইসি। এদিকে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী মুহাম্মদ ছায়েদুল হক এবং এমপি গোলাম মোস্তফার মৃত্যুতে শূন্য হওয়া ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ (নাসিরনগর) ও গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জের) আসনের উপনির্বাচনের দিনক্ষণও ঠিক করা হয়েছে। আগামী ১৩ মার্চ এই দুটি আসনে ভোট হবে। রাজধানীর আগারগাঁওয়ের নির্বাচন ভবনে বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত কমিশন সভায় এসব সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। বৈঠব শেষে ইসির ভারপ্রাপ্ত সচিব হেলালুদ্দীন সাংবাদিকদের এ তথ্য জানিয়ে বলেন, ঢাকার নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হবে ৯ জানুয়ারি। আর দুই সংসদীয় আসনে উপ নির্বাচনের বিস্তারিত সময়সূচি ৫ ফেব্রুয়ারি ঘোষণা করা হবে।

২০১৫ সালের ২৮ এপ্রিল ঢাকা উত্তর-দক্ষিণ ও চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনে সর্বশেষ ভোট হয়। আওয়ামী লীগের সমর্থনে ওই নির্বাচনে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র নির্বাচিত হন আনিসুল হক। প্রায় দুই বছর ধরে দায়িত্ব পালনের মধ্যেই চলতি বছর ৩০ নভেম্বর চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন সেরিব্রাল ভাস্কুলাইটিসে আক্রান্ত আনিসুল। স্থানীয় সরকার বিভাগ ১ ডিসেম্বর থেকে মেয়র পদটি শূন্য ঘোষণা করায় আইন অনুযায়ী ৯০ দিনের মধ্যে এ উপ নির্বাচন করার বাধ্যবাধকতা রয়েছে ইসির।

ঢাকার দুই সিটি কর্পোরেশনের নতুন ৩৬ ওয়ার্ডেও যে একই দিনে ভোট হবে, সেই পরিকল্পনার কথা আগেই জানিয়েছিল নির্বাচন কমিশন। স্থানীয় সরকার বিভাগ গতবছর ২৬ জুলাই দুই সিটি কর্পোরেশনে ৩৬টি ওয়ার্ড বাড়িয়ে নতুন সীমানা নির্ধারণের গেজেট জারি করে। এরপর গত ৮ অগাস্ট এসব ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদে ভোট করতে ইসিকে অনুরোধ জানানো হয়। ঢাকা উত্তরের নতুন মেয়র এবং ৩৬টি নতুন ওয়ার্ডের কাউন্সিলরদের মেয়াদ হবে সিটি কর্পোরেশনের মেয়াদ থাকা পর্যন্ত। ঢাকা উত্তরের ক্ষেত্রে এই মেয়াদ হবে ২০২০ সালের ১৩ মে পর্যন্ত; আর দক্ষিণে ওই বছরের ১৬ মে পর্যন্ত।

এদিকে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী মুহাম্মদ ছায়েদুল হক এবং এমপি গোলাম মোস্তফার মৃত্যুতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ (নাসিরনগর) ও গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জের) আসন দুটি শূন্য হলে উপ নির্বাচনের বাধ্যবাধকতা তৈরি হয়। ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ আসন থেকে আওয়ামী লীগের টিকিটে পাঁচবার এমপি নির্বাচিত হওয়া ছায়েদুল হক গত ১৬ ডিসেম্বর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। আর সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত গোলাম মোস্তফা ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ১৯ ডিসেম্বর মারা যান।

সূত্রঃ মানবকণ্ঠ/এফএইচ

Leave A Reply